আদার উপকারিতা সমূহ
লাইফ স্টাইল

আদার উপকারিতা সমূহ

আমরা সবাই আদা ব্যবহার করে থাকি। তবে আদার উপকারিতা ও অপকারিতা সম্পর্কে খুবই কম জেনে থাকি।এই পোস্টের দ্বারা আমরা শেয়ার করবো আদা সম্পর্কে কিছু বেসিক নলেজ।

আদার উপাদান সমূহ

প্রতি ১০০ গ্রাম আদায় থাকে ৮০  ক্যালরি শক্তি,কার্বোহাইড্রেট ১৭ গ্রাম,ফ্যাট .৭৫ গ্রাম,পটাশিয়াম ৪১৫ মিলিগ্রাম এবং ৩৪ মিলিগ্রাম ফসফরাস।

আদার উপকারিতা সমূহ

সিজনাল হালকা রোগে আদা

আদাতে রয়েছে অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল ‍উপাদান,যা শরীরের রোগজীবাণু ধ্বংস করে থাকে। হালকা জ্বর জ্বর ভাব,মাথা ব্যথা ও গলাব্যথা দুর করে থাকে আদা। কাশি ও হাঁপানিতে আদা ও মধুর মিশ্রণ বেশ উপকারি।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়-

আদা সেবনে আমাদের দেহের রোগ প্রতিরোদ ক্ষমতা বাড়ায়।গবেষনায় দেখা গেছে, আদার রস দাঁতের মাড়িকে শক্ত করে,দাঁতের ফাঁকে জমে থাকা লুকানো জীবাণুকে ধ্বংস করে।

শরীরের ব্যথা দুর করে-

আদা হল ব্যথানাশক যা শরীরের প্রায় প্রতিটি হাড়ের জোড়ায় প্রচুর ব্যথা হয়। এই ব্যথা আদা দুর করে থাকে।কাচাঁ আদা এক্ষেত্রে বেশ কার্যকরি, এতে আদার পুষ্ঠিগুন থাকে বেশী। আমাদের শরীরের যেকোনো ধরনের ব্যথায় আদা কাজ করে টনিকের মতো।

ক্ষত শুকাতে আদা-

দেহের কোথাও ক্ষত থাকলে তা খুব দ্রুত শুকাতে সাহায্য করে আদা।এতে রয়েছে অ্যান্টি  ইনফ্ল্যামেটরি,যা কাটাছেঁড়া ও ক্ষত দ্রুত ভালো করে থাকে।

মাইগ্রেন ও ডায়াবেটিস এ আদা-

মাইগ্রেনের ব্যথা ও ডায়াবেটিসজনিত কিডনির জটিলতা আদা দুর করে থাকে।গর্ভবর্তী মায়েদের সকাল বেলা,বিশেষ করে গর্ভধারণের প্রথম দিকে শরীর খারাপ লাগে। কাচাঁ আদা এ সমস্যা দুর করে থাকে।

বমিবমি ভাব দূর করে থাকে-

সাধারণত যানবাহনে চলার সময় অনেকে আছেন অস্বস্তিতে ভোগেন বা গাড়িতে চড়ার সময় বমি হয়। এই বমি বমি ভাব দূর করতে আদা ভালো কাজ করে থাকে। বমি ভাব আসলে আদা চিবিয়ে খেতে পারেন। এতে বমি ভাব দূর হয় সাথে মুখের স্বাদও বাড়ে।

পেটের পীড়ায় আদা-

পেটের পীড়ায় আদা হল আদর্শ পথ্য।খাবারের গুনাগুন আমাদের শরীরের বিভিন্ন অংশে পৌঁছে দিতে আদা সক্রিয় ভূমিকা রাখে।আদা হজমে সহয়তা করে। খাওয়ার পরে পেটব্যথা সমস্যায় আদা কাজ করে। আমাদের পেটের ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ রোধে আদা ভূমিকা রাখে।

ফুসফুসের সংক্রমণরোধ

ফুসফুসের যে কোন ধরণের সাধারণ রোগে আদা প্রতিরোধী ভূমিকা রাখে।সর্দি,কাশি,শ্বাস-প্রশ্বাসের মতো সকল সাধারণ সমস্যা আদা দূর করে থাকে।

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *